বিষয়ঃ বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয়, শ্রেণীঃ সপ্তম এসাইনমেন্ট

 প্রিয় শিক্ষার্থী বন্ধুরা করোনা ভাইরাসের কারণে তোমাদের বিদ্যালয়ের পাঠ ব্যবস্থা এখন সাময়িকভাবে বন্ধ রয়েছে। কিন্তু পরবর্তী ক্লাসে উত্তীর্ণ করার লক্ষ্যে জাতীয় শিক্ষা বোর্ড তোমাদের জন্য সাময়িকভাবে দূরত্ব বজায় রেখে অ্যাসাইনমেন্ট গ্রহণ করার প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে। অ্যাসাইনমেন্ট নিয়ে তোমরা অনেক ঝামেলায় পরেছ। কেননা পড়ালেখা না থাকার জন্য বিভিন্ন ধরনের সমস্যায় পড়েছে। তোমাদের জন্য আমাদের ওয়েবসাইটে নিয়মিতভাবে বিভিন্ন বিষয়ে বিভিন্ন শ্রেণীর অ্যাসাইনমেন্ট গুলো প্রকাশ করে যাচ্ছি। তোমরা অ্যাসাইনমেন্টগুলো পেতে নিচে বিনামূল্যে ডাউনলোড করে নাও। নিতে তোমাদের জন্য সপ্তম শ্রেণির বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয় এর অ্যাসাইনমেন্ট তুলে দেয়া হলো। বাংলাদেশের সঙ্গে ভারত ও চীনের বন্ধুত্ব ও সহযোগিতার পুরনো সম্পর্ক খুবই সৌহার্দ্যমূলক। ভারত আমাদের নিকটতম প্রতিবেশী দেশ্।এটি দক্ষিণ এশিয়ার একটি বৃহৎ ও শক্তিশালী রাষ্ট্র। এশিয়া মহাদেশের মধ্যে ভারতের অবস্থান অনেক বেশি। ভারতকে পৃথিবীর অন্যতম প্রাচীন ও সভ্যতার সমৃদ্ধ দেশ বলা হয়। ৫ হাজার বছর আগে সভ্যতার নিদর্শন পাওয়া গেছে এ দেশটিতে। ভারতকে বলা হয় পৃথিবীর বৃহত্তম গণতান্ত্রিক দেশ। সংসদীয় গণতান্ত্রিক শাসনব্যবস্থা ও সাফল্যের সঙ্গে কাজ করছে ভারত। ভারত বহুজাতিক সম্প্রদায় এবং বহু ভাষাভাষী মানুষের একটি দেশ । এদেশের হিন্দু ,মুসলমান , জৈন ধর্মের লোক বাস করে। বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রয়েছে। ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে ভারতের সহায়তায় কথা আমরা শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করি। চীন পূর্ব এশিয়ার একটি দেশ। এই দেশটির রাষ্ট্রীয় নাম গণপ্রজাতন্ত্রী চীন। দেশের রাজধানীর নাম বেইজিং। বহু জাতীয় সম্প্রদায়ের বাস চীনে। চীনের জনসংখ্যার শতকরা ৯৫ ভাগ চাইনিজ বংশোদ্ভূত। চীনের অর্থনীতি এখনো প্রধানত কৃষিনির্ভর। কৃষিদ্রব্য এর মধ্যে ধান প্রধান। প্রশাসনিক দিক থেকে ২২ টি প্রদেশে ও পাঁচটি স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চলে ভাগ করা হয়েছে। দেশটির শিক্ষার হার শতকরা ৮৬ ভাগ। আমাদের দেশের সঙ্গে জাপানের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক আছে। জাপান একটি দ্বীপ দেশ। ছোট-বড় প্রায় ৪০০০ দ্বীপ নিয়ে রাষ্ট্রটি গঠিত। একটি রাষ্ট্রীয় নাম কিংডম অফ জাপান। জাপানের রাজধানী টোকিও। এশিয়া মহাদেশের একেবারে পূর্ব প্রান্তে অবস্থিত। জাপানকে সূর্যোদয়ের দেশ বলে আখ্যায়িত করা হয়। মালয়েশিয়া দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার একটি গুরুত্বপূর্ণ দেশ। মালয়েশিয়াতে ১৫টি প্রদেশ রয়েছে । দেশটির ভূ-প্রাকৃতিক বৈচিত্র্যপূর্ণ। এর পশ্চিমাংশে জলাভূমি পরিবেষ্টিত এলাকা এবং মধ্যভাগের পর্বতশ্রেণীর উত্তর ও দক্ষিণে বিস্তৃত। মালয়েশিয়া একটি কৃষি প্রধান দেশ। এ দেশে অনেক শিল্পসমৃদ্ধ দেশ। প্রধান শিল্প পণ্যের মধ্যে রয়েছে রাবার, চিনামাটির দ্রব্য প্রভৃতি। বাংলাদেশের বাণিজ্যিক স্বার্থে অনেক দেশের সঙ্গে সম্পর্ক রয়েছে। এছাড়াও বাংলাদেশের বিভিন্ন ইপিজেডে মালয়েশিয়া অনেক অর্থ বিনিয়োগ করছে। তাই বাংলাদেশের অনেক লোক মালয়েশিয়াতে বর্তমানে কর্মরত রয়েছে।

শাহরিয়ার হোসেন

শাহরিয়ার হোসেন একজন ক্ষুদ্র ব্লগার। লিখতে খুব ভালোবাসেন। অনলাইনে বিভিন্ন ব্লগে ২০১৮ সালের জানুয়ারী থেকে লিখছেন। কাজের চেয়ে নিজের নাম প্রচারের ওপর বেশি গুরুত্ব দেন। সে চিন্তা থেকেই এই ব্লগের উৎপত্তি। তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইংরেজি সাহিত্যে অনার্স কমপ্লিট করেছেন। বর্তমানে একই বিভাগে মাস্টার্স এ অধ্যায়নরত।

Related Articles

Back to top button
Close
Close