তারাবির নামাজ 20 রাকাত না 8 রাকাত

তারাবির নামাজ 20 রাকাত না 8 রাকাত

নামাজ প্রতিটি মুসলমানের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি ইবাদত। ইবাদতের মধ্যে সর্বশ্রেষ্ঠ ইবাদত হলো নামাজ। আর মহান আল্লাহতালা কিয়ামতের কঠিন দিন যে বিষয়টি হিসেব সর্বপ্রথম আগে গ্রহণ করবেন তাহলে নামাজের হিসাব। তাই মহান আল্লাহতালা নির্দেশে মুসলমানদের ওপর পাঁচ ওয়াক্ত ফরজ নামাজ বাধ্যতামূলক ইবাদত হিসেবে নির্ধারণ করা হয়। আর পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ ব্যতীত মুসলমানদের আরো বেশ কিছু নামাজ আদায় করতে হয়। আর সেই বেশ কিছু নামাজের মধ্যে রমজান মাসের তারাবির নামাজটি অন্যতম একটি নামাজ।

এই নামাজটি সারা বিশ্বের মুসলমানরা অতি আগ্রহের সাথে আদায় করে থাকেন। কারণ রমজান মাসের বিশেষ ইবাদত গুলোর মধ্যে তারাবির নামাজ একটি। তবে তারাবির নামাজ নিয়ে অনেকেরই দ্বিমত রয়েছে। তাই অনেক মুসলিম ভাই ও বোনেরা জানতে আগ্রহী তারাবির নামাজ 20 রাকাত না 8 রাকাত। কারন এই বিষয়টি জানাটা অত্যন্ত জরুরি। কারণ আপনি নামাজ পড়বেন কয় রাকাত সে বিষয়টি না জানা থাকলে আপনি সঠিক ভাবে নামাজ আদায় করতে পারবেন না। চলুন তাহলে দেরি না করে জানা যাক গুরুত্বপূর্ণ এ বিষয়টি সম্পর্কে।

সারা বিশ্বের মুসলমানেরা রমজান মাসের ইবাদত করার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করে। আর রমজান মাসের ইবাদত গুলোর মধ্যে বিশেষ ইবাদত হল এশার নামাজের পর তারাবির নামাজ আদায় করা। তারাবির নামাজ আমাদের প্রিয় নবী হযরত মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাই সাল্লাম নিজে আদায় করেছেন এবং তার সাহাবাদের বিশেষ এই নামাজ আদায় করার জন্য বিশেষ ভাবে তাগিদ দিয়েছেন। যদিও তারাবির নামাজ সুন্নতে মুয়াক্কাদা তবুও এই নামাজের ফজিলত ও গুরুত্ব মহান আল্লাহতালার কাছে অধিক পরিমাণে। তারাবির নামাজ সম্পর্কে এক হাদিসে বলা হয়েছে

যে ব্যক্তি ইমানের সঙ্গে সওয়াবের উদ্দেশ্যে রমজান মাসে তারাবিহ নামাজ পড়বে, তার অতীতের সব গুনাহ মাফ করে দেওয়া হবে। তাই প্রতিটি ইবাদতের ক্ষেত্রে ইসলামে কিছু বিধি ও নিয়ম কানুন রয়েছে আর তারাবির নামাজের ক্ষেত্রেও ব্যতিক্রম নয়। তাই আমরা যখন তারাবির নামাজ আদায় করব অবশ্যই তারাবির নামাজ কয় রাকাত আদায় করতে হয় তা জেনে সঠিক নিয়ম অনুসরণ করে এই নামাজ আদায় করব। রমজান মাসে এই নামাজের গুরুত্ব অধিক।

তারাবির নামাজ নিয়ে আমাদের মুসলমানদের মধ্যে এক ধরনের দ্বিমত রয়েছে। মুসলমানদের মধ্যে এক শ্রেনীর মানুষ বলে তারাবির নামাজ ৮ রাকাত আদায় করতে হয় আর আরেক শ্রেণীর মানুষ বলে তারাবির নামাজ ২০ রাকাত আদায় করতে হয়। কিন্তু ইসলাম ধর্ম এমন একটি ধর্ম কোন মানুষের কথাই এটা চলে না। প্রতিটি বিষয়ে ইসলাম ধর্ম ব্যাখ্যা প্রদান করেছেন তাই আমরা পবিত্র কুরআন ও হাদিস অনুসারে তারাবির নামাজের রাকাত সম্পর্কে কি বলা হয়েছে তা আগে জানতে হবে। বিভিন্ন আলেম ও ইসলামিক চিন্তাবিদ দের মতামত অনুসারে তারাবির নামাজ এক ধরনের নফল ইবাদত।

এই নামাজের নির্দিষ্ট কোন রাকাতের কথা কোথাও উল্লেখ করা নেই ‌ কোন মুসলমান ব্যক্তি যদি তারাবির নামাজ আদায় করতে চাই তাহলে দুই রাকাত করে ৮ রাকাত, ১০ রাকাত, ১২ রাকাত, ১৬ রাকাত, ২০ রাকাত, ২৪ রাকাত, ৩০ রাকাত, সর্বোচ্চ ৩৬ রাকাত যার যতটুকু সমর্থ রয়েছে তিনি ততটুকু তারাবির নামাজ আদায় করবেন। তারাবির নামাজ মূলত রাতের নামাজ এবং রাতের নামাজের মধ্যে রাসুলুল্লাহ (সা:) এর নির্দেশনা হচ্ছে দুই রাকাত, দুই রাকাত করে আদায় করা।

তারাবির নামাজ আদায় করার ক্ষেত্রে ৮ রাকাত ২০ রাকাত এরকম কোন কথা নয় আপনি এই নামাজ আদায় করার সময় সহীহ সুন্দর ভাবে পারতো পক্ষে দীর্ঘ সময় ধরে এই নামাজ আদায় করতে হবে। রমজান মাসে সারা বিশ্বের মুসলমানের জন্য তারাবির নামাজটি খুব ফজিলতপূর্ণ ও বিশেষ একটি নামাজ। একজন মুসলমান ব্যক্তি যদি রমজান মাসের পুরো ইবাদত পালন করতে চাই সে যেন কখনোই তারাবির নামাজ থেকে নিজেকে বিরত রাখে না।

যেহেতু তারাবির নামাজ কয় রাকাত এই মর্মে অনেক মতভেদ আলেমদের মাঝে দেখা যায়। তাই আমাদের উচিত হবে কুরআন পড়া ও হাদিসে এই বিষয়টি কি বলা রয়েছে তা জেনে নেওয়া। কারণ ইসলাম ধর্মের প্রতিটি বিষয়ে সুন্দর ও সহজ সমাধান দিয়েছেন। তাই আজ আমরা আপনাদেরকে জানিয়ে দিলাম তারাবির নামাজ 20 রাকাত না 8 রাকাত। এই ধরনের গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নের উত্তর জানার জন্য আপনারা আমাদের সঙ্গে থাকুন।

About শাহরিয়ার হোসেন 4779 Articles
Shahriar1.com ওয়েবসাইটে আপনার দৈনন্দিন জীবনের প্রয়োজনীয় যা কিছু দরকার সবকিছুই পাবেন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*